আজ ২৫শে বৈশাখ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, ৮ই মে, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ

সখিপুরে ২ বছরের শিশু রাইসা হত্যার বিচার দাবিতে মানববন্দন

নিজস্ব প্রতিনিধিঃ টাঙ্গাইলের সখীপুর উপজেলার হতেয়া কেরানীপাড়া গ্রামের দুই বছরের শিশু রাইসা হত্যার বিচার দাবিতে মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়েছে। গতকাল সোমবার (২১ ডিসেম্বর) সকাল ১১টার দিকে উপজেলার তক্তারচালা পুরাতন বাজারে মানববন্ধন করেন কেরানীপাড়া গ্রামবাসী। এতে গ্রামবাসী ও হাতীবান্ধা ইউনিয়নের সহস্রাধিক পুরুষ-মহিলা অংশগ্রহণ করেন। নিহত রাইসা উপজেলার হতেয়া কেরানীপাড়া গ্রামের ইরাক প্রবাসী রাজিব খানের(রাজু খান) মেয়ে।

মানববন্ধনে বক্তব্য দেন রাইসার মা লিপা আক্তার, টাঙ্গাইল জেলা ছাত্রলীগের যুগ্ম আহবায়ক রনি আহমেদ, হাতীবান্ধা ইউনিয়ন আ.লীগ সভাপতি নরেন্দ্র চন্দ্র সরকার, সম্পাদক শাহজাহান রবিন, ফায়জুর রহমান, ইকবাল হোসেন, শাহজালাল, রফিক, খালেকুজ্জামান, ঝন্টু প্রমুখ।

বক্তারা হত্যাকারীদের ফাঁসি দাবি করেন। একই সঙ্গে হত্যাকাণ্ডের সঙ্গে জড়িত সুমা খানের মা ও ভাইকে দ্রুত গ্রেপ্তারের দাবি জানিয়েছেন তাঁরা। এসময় সখীপুর-ঢাকা-টাঙ্গাইল সড়ক বন্ধ হয়ে যায়। ফলে রাস্তার উভয় পাশে তীব্র যানজটের সৃষ্টি হয়।

সখীপুর থানার উপপরিদর্শক (এসআই) ও মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা সিরাজুল ইসলাম বলেন, স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দির পর সুমা খান ও তাঁর স্বামী আরমান খানকে টাঙ্গাইল কারাগারে পাঠানো হয়েছে।

প্রসঙ্গত, নিখোঁজের ৬ ঘণ্টা পর সোমবার(১৪ডিসেম্বর) রাত ১১টায় উপজেলার হতেয়া কেরানীপাড়া এলাকা থেকে রাইসার বস্তাবন্দী লাশ উদ্ধার করে পুলিশ। এ ঘটনায় মঙ্গলবার(১৫ ডিসেম্বর) দুপুরে রাইসার মা লিপা আক্তার বাদী হয়ে অজ্ঞাত ব্যক্তিদের আসামি করে সখীপুর থানায় একটি হত্যা মামলা করেন। মামলার পর পুলিশ প্রতিবেশী আরমান খান(৩৫) ও তাঁর স্ত্রী সুমা খানকে (২৫)

মঙ্গলবার(১৫ ডিসেম্বর) রাতে গ্রেপ্তার করে। পরে বুধবার (১৬ ডিসেম্বর) তাঁদের টাঙ্গাইল আদালতে পাঠানো হয়। একই দিন সন্ধ্যায় টাঙ্গাইল চিফ জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে সুমা খান শিশু রাইসা হত্যার দায় স্বীকার করে ১৬৪ ধারায় জবানবন্দি দেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

     এ বিভাগের আরো সংবাদ