আজ ৩১শে আশ্বিন, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, ১৬ই অক্টোবর, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ

সখিপুরে সনাতন ধর্মের প্রেমিকের প্রতারণায় ৭ মাসের অন্তঃসত্ত্বা এক এতিম যুবতী

নিজস্ব প্রতিবেদকঃ টাঙ্গাইলের সখীপুর উপজেলার সানবান্ধা গ্রামের মুসলিম পরিবারের এক এতিম যুবতী (১৯) সনাতন ধর্মের প্রেমিক অসীম ধোপার প্রতারণার শিকার হয়ে ৭ মাসের অন্তঃসত্ত্বা হয়েছেন। এ ঘটনায় মামলা দায়ের করার পর টাঙ্গাইল মডেল থানা পুলিশ প্রতারক প্রেমিক অসীম ধোপাকে গ্রেফতার করে জেল-হাজতে পাঠিয়েছে। গ্রেফতারকৃত অসীম ধোপা(৩৭) করটিয়া হাটখোলা এলাকার প্রয়াত অতুল ধোপার ছেলে।

মামলা সূত্রে জানা যায়, শিশুকালে মা-বাবা মারা যাওয়ার পর ওই যুবতী টাঙ্গাইল সদর উপজেলার করটিয়া কলেজপাড়ার লাল মিয়ার বাড়িতে তার প্রতিবেশি বড় বোনের ভাড়া বাসায় থাকতো। ওই বাড়িতে থাকার সুবাদে অসীম ধোপার সাথে তার পরিচয় হয়। অসীম ধোপা একাধিকবার ওই এতিম যুবতীকে প্রেমের প্রস্তাব দেয়। তবে ভিন্ন ধর্মের যুবক হওয়ায় তার প্রেমের প্রস্তাব ফিরিয়ে দেন ওই যুবতী। এক পর্যায়ে অসীম ধোপা নানা কৌশলে যুবতীকে প্রেমের ফাঁদে ফেলেন। পরে এতিম ও অসহায়ত্বের সুযোগ নিয়ে ধর্মান্তরিত হয়ে বিয়ে করার প্রলোভন দেখিয়ে ওই যুবতীকে ফুসলিয়ে একাধিবার ধর্ষণ করে। সর্বশেষ গত বছরের ২৪ সেপ্টেম্বর করটিয়া হাটে অসীম ধোপার কাপড়ের গোডাউনের ভেতর পুনরায় বিয়ের প্রলোভনে ধর্ষণ করে।

এতে ওই যুবতী অন্তঃসত্ত্বা হয়ে পড়ে। অন্তঃসত্ত্বা হওয়ায় যুবতী বিয়ের জন্য চাপ দিলে অসীম ধোপা বিয়ে করবেনা এবং কোন ভাবেই ধর্মান্তরিত হবে না বলে সাফ জানিয়ে দেয় তাকে। এ সময় ওই নারী জানতে পারেন অসীম ধোপা বিবাহিত এবং সন্তানের জনক। বিয়ের জন্য চাপ দেওয়ায় ওই যুবতীকে গর্ভের সাত মাসের সন্তান নষ্ট করতে বলে। এতে রাজি না হওয়ায় তাকে মেরে ফেলার হুমকি দেয়। গত ২০ জানুয়ারি বাধ্য হয়ে ওই এতিম যুবতী বাদী হয়ে টাঙ্গাইল মডেল থানায় মামলা দায়ের করেন।

মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা ও টাঙ্গাইল মডেল থানার উপ-পরিদর্শক(এসআই) প্রতিমা রাণী তরফদার জানান, মামলা দায়েরের পরই অভিযুক্ত অসীম ধোপাকে গ্রেফতার করে আদালতের মাধ্যমে কারাগারে পাঠানো হয়েছে। এতিম মেয়েটি যাতে ন্যায় বিচার পান সে বিষয়ে সর্বাত্মক চেষ্টা আছে বলেও জানান তিনি।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

     এ বিভাগের আরো সংবাদ