February 28, 2021, 9:24 am

২৩ মিনিটেই ঘুরে যায় ম্যাচের বাঁক নাটাই এখন বাংলাদেশের হাতে

ক্রিড়া প্রতিনিধিঃ আগুনে বোলিংয়ে চতুর্থ দিনের শুরুতে দারুণ শুরু এনে দিয়েছিলেন পেসার আবু জায়েদ রাহী। ঠিক এমন শুরু চেয়েছিল বাংলাদেশ। রাহীর প্রথম সেশনের আক্রমণ ও দ্বিতীয় সেশনে তাইজুল ও নাঈমের স্পিন ঘূর্ণিতে এলোমেলো অতিথিরা।

মধ্যাহ্ন বিরতির পর মাত্র ২৩ মিনিটের লড়াই। তাতে ঘুরে যায় ম্যাচের বাঁক। নাটাই এখন বাংলাদেশের হাতে। ওয়েস্ট ইন্ডিজ গুটিয়ে যায় ১১৭ রানে। বাংলাদেশের বিপক্ষে এটি তাদের দ্বিতীয় সর্বনিম্ন রান। ২০১৮ সালে ওয়েস্ট ইন্ডিজ অলআউট হয়েছিল ১১১ রানে। প্রথম ইনিংসের ১১৩ রানসহ বাংলাদেশের সামনে লক্ষ্য দাঁড়ায় ২৩১।

এর আগে কখনো এত রান তাড়া করে জেতেনি বাংলাদেশ। সর্বোচ্চ ২১৫ রান তাড়া করে জয়ের রেকর্ড রয়েছে বাংলাদেশের। ক্যারিবিয়ানদের বিপক্ষেই ২০০৯ সালে তাদের মাটিতেই এই রেকর্ড গড়েন লাল সবুজের প্রতিনিধিরা।

নাইটওয়াচম্যান জোমেল ওয়ারিক্যানকে ফিরিয়ে দিনের পঞ্চম ওভারে বাংলাদেশকে সাফল্যে ভাসান পেসার আবু জায়েদ রাহী। তার সোজা ডেলিভারিতে বল মিস করে এলবিডব্লিউ হন ওয়ারিক্যান। এরপর আবারও রাহীর আক্রমণ। এবার ফেরান কাইল মায়ার্সকে। মাত্র ৬ রানের এলবিডব্লিউ হন তিনি। মায়ার্সের পরে দ্রুত রান তুলতে গিয়ে মাত্র ৯ রানে স্টাম্পিংয়ের শিকার ব্ল্যাকউড। প্রথম সেশনে ২৭ ওভারে ৩ উইকেট হারিয়ে ৫৭ রান করে সফরকারীরা।

মধ্যাহ্ন বিরতি থেকে ফেরার পরের গল্প শুধু স্পিনারদের। তাইজুলের জোড়া আঘাতের পর লেজের ২ ব্যাটসম্যানকে ফেরান নাঈম হাসান। প্রথমে জশুয়া ডি সিলভা ও পরে আলজারি জোসেফকে সাজঘরের পথ দেখান এ বাঁহাতি স্পিনার। জশুয়া তার অফস্টাম্পের বাইরের বল খোঁচা মেরে স্লিপে ক্যাচ দেন। জোসেফ ক্যাচ দেন কভারে। শর্ট কভারে তার ড্রাইভ মুমিনুলের কাঁধে লেগে শান্তর হাতে জমা হয়।

এরপর ক্যারিবিয়ান শিবিরের শেষ ২ উইকেট নেন স্পিনার নাঈম হাসান। এনক্রোমার বোনার তার বলে রিভার্স সুইপ খেলতে গিয়ে বোল্ড হন ৩৮ রানে। ওই ওভারের পঞ্চম বলে রাকিম কর্নওয়াল তাকে উড়াতে গিয়ে মিড উইকেটে ক্যাচ দেন। শেষ ২ উইকেট নিয়ে ওয়েস্ট ইন্ডিজের ব্যাটিং অর্ডারের লেজ কাটেন ডানহাতি স্পিনার। দ্বিতীয় সেশনের ২৩ মিনিটে ১৯ রানে ৪ উইকেট হারায় ওয়েস্ট ইন্ডিজ।

এর আগে স্কোরবোর্ডে ৩৯ রান ও হাতে ৭ উইকেট নিয়ে দিন শুরু করে ওয়েস্ট ইন্ডিজ। গতকাল বিকেলে ১টি করে উইকেট নিয়েছিলেন তাইজুল, মিরাজ ও নাঈম। আজ অতিথিরা যোগ করতে পারে মাত্র ৭৬ রান।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

     এ বিভাগের আরো সংবাদ
Share via
Copy link
Powered by Social Snap