আজ ৭ই বৈশাখ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, ২০শে এপ্রিল, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ

টাঙ্গাইল থেকে ‘কোটি টাকা’ হাতিয়ে আত্মগোপনে, হলো না শেষ রক্ষা

ডেস্ক রিপোর্টঃ প্রায় এক কোটি টাকা হাতিয়ে নিয়ে টাঙ্গাইল থেকে কক্সবাজারে পালিয়ে এসে আত্মগোপনে থেকেও শেষ রক্ষা হলো না মোবাইলে আর্থিক লেনদেনকারী একটি প্রতিষ্ঠানের তিন কর্মচারীর। বুধবার (৭ এপ্রিল) সন্ধ্যা সাতটার দিকে কলাতলীর সেন্টমার্টিন রিসোর্ট থেকে কক্সবাজার জেলা গোয়েন্দা পুলিশের অভিযানে তারা গ্রেফতার হন। বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন জেলা পুলিশের গোয়েন্দা শাখার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) শেখ মোহাম্মদ আলী। গ্রেফতার ব্যক্তিরা হলেন- টাঙ্গাইলের মধুপুর থানার ব্রাহ্মণবাড়ি গ্রামের আনিসুল হকের ছেলে মো. আতিকুর রহমান (২৪), ভবানি ঢেঁকি গ্রামের আবদুল হামিদের ছেলে নুরুল ইসলাম (২৫) ও দক্ষিণ হাসিল গ্রামের আব্দুল মান্নানের ছেলে শামীম হোসেন (২৪)। তারা টাঙ্গাইল সদরের বিশ্বাস বেতকার মহিউদ্দিন সুমনের ডিজিটাল লেনদেন সেবা প্রতিষ্ঠানের কর্মচারী। কক্সবাজার জেলা পুলিশের গোয়েন্দা শাখার ওসি শেখ মোহাম্মদ আলী জানান, মো. মহিউদ্দীন সুমন নামে টাঙ্গাইলের এক ব্যক্তি তার প্রতিষ্ঠানের তিন কর্মচারীর বিরুদ্ধে মামলা করেন। তারা ডিজিটাল লেনদেন সেবা নগদ ও বিকাশের প্রায় কোটি টাকা আত্মসাৎ করে গা-ঢাকা দিয়েছেন বলে মামলায় অভিযোগ করা হয়। তিনি বলেন, টাঙ্গাইল সদর থানায় দায়ের করা অভিযোগের বিষয়টি কক্সবাজার জেলা পুলিশকেও জানানো হয়। এটি জেনে তথ্য-প্রযুক্তির সহায়তায় ওই তিনজনের কক্সবাজারে অবস্থানের খবর নিশ্চিত হওয়া যায়। এরপর জেলা গোয়েন্দা পুলিশের একটি টিম কলাতলীর সেন্টমার্টিন রিসোর্টে অভিযান চালিয়ে তাদের গ্রেফতার করে। ডিবির এই ওসি আরও বলেন, প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে তারা তাদের চাকরিস্থল থেকে মালিকের ৯৮ লাখ টাকা হাতিয়ে নিয়ে পালিয়ে আসার কথা স্বীকার করেছেন। আটক তিনজনকে নিয়ে আসতে রাতেই টাঙ্গাইল থেকে পুলিশের একটি টিম কক্সবাজারের উদ্দেশ্যে রওনা দিয়েছে। তারা কক্সবাজার পৌঁছালে তাদের হাতে গ্রেফতারকৃতদের হস্তান্তর করা হবে। মামলার বাদী মহিউদ্দিন সুমন মুঠোফোনে সাংবাদিকদের জানান, গত ৪ এপ্রিল তার দোকানের তিন কর্মচারী ডিজিটাল লেনদেন সেবা নগদ ও বিকাশের এক কোটি টাকা চুরি করে আত্মগোপনে চলে যায়। এ বিষয়ে টাঙ্গাইল থানায় মামলা করা হলে মোবাইল ট্র্যাকিংয়ের মাধ্যমে তাদের শনাক্ত করে গ্রেফতার করা হয়েছে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

     এ বিভাগের আরো সংবাদ
Share via
Copy link
Powered by Social Snap