আজ ২রা আষাঢ়, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ, ১৬ই জুন, ২০২১ খ্রিস্টাব্দ

ভূঞাপুরে গাছে গাছে সাটানো হয়েছে আল্লাহর গুনবাচক নাম

নিজস্ব প্রতিনিধিঃ টাঙ্গাইলের ভূঞাপুরে আল্লাহ তা’লার জিকির ও গুণবাচক নাম গাছে গাছে সাঁটানো হয়েছে। এতে লেখা রয়েছে- আলহাদুলিল্লাহ, সুবহানাল্লাহ, আল্লাহু আকবার ও লা-ইলাহা ইল্লাল্লাহ-সহ আল্লাহ তা’লার অসংখ্য গুণবাচক নাম। শুধু তাই নয়, প্রিয় নবী হযরত মুহাম্মদ (সা.)-এর বাণীও সাঁটানো হয়েছে। এমন দৃশ্য নজর কেড়েছে রাস্তায় চলাচলকারী মানুষের।আরবি ও বাংলায় লেখা আল্লাহ তা’লার গুণবাচক এমন বাণী পড়ছেন স্কুল-কলেজের শিক্ষার্থীসহ বিভিন্ন শ্রেণি-পেশার মানুষ।

স্থানীয়রা এমন উদ্যোগকে সাধুবাদ জানিয়েছে। তবে কে বা কারা এমন বাণী গাছে সাঁপিয়েছে তা জানেন না কেউ। স্থানীয়রা বলছেন, রাতের কোনো সময়ে কেউ না কেউ গুণবাচক নামগুলো গাছে সাঁটিয়েছে। কিন্তু এ নামগুলোর ফেস্টুনে কোনো সংগঠনের নাম উল্লেখ নেই। আবার কোনোটাতে লেখা থাকলেও পুরো নাম লেখা নেই।

সরেজমিন উপজেলার কয়েড়া, নিকরাইল, সিরাজকান্দি, সারপলশিয়া, পাথাইলকান্দি, টোলাজান কয়েড়া (নৌকা মোড়), রুহুলী, চর কয়েড়া, ফলদা, মাটিকাটা, নিকলা ও পৌর এলাকার বামনহাটা, ঘাটান্দি বিভিন্ন এলাকার গাছে বাণীগুলোর চিত্র রাস্তার দুপাশে দেখা যায়।

গুণবাচক নামসংবলিত ফেস্টুন কম্পিউটার কম্পোজ করে সাঁটানো হয়েছে। ঝড়-বৃষ্টি থেকে ফেস্টুনগুলোকে বাঁচাতে করা হয়েছে লেমেনেটিং।

পথচারী আল আমীন বলেন, সকালবেলা এই রাস্তা দিয়ে হেঁটে বাড়ি যাই এবং বাজারে আসি। যাওয়া-আসার সময় গাছে টাঙানো আমাদের প্রিয় নবীর বাণীগুলো পড়ি। এতে আমার ভালো লাগে ও সওয়াব পাওয়া যায়।

ইজিবাইকচালক আনোয়ার বলেন, আমি আরবি পড়তে জানি না। তবে বাংলায় লেখা বাণীগুলো পড়তে পারি। এখান থেকে পড়ে আমি অনেকগুলো মুখস্থ করে নিয়েছি।

স্থানীয় যুবক হুমায়ন বলেন, সড়কের দুই পাশের গাছগুলো পরিবেশবান্ধব। সেই সঙ্গে গাছে গাছে আল্লাহর জিকির লেখা দেখামাত্র আল্লাহকে স্মরণ হয়। প্রতিদিন সকালে সড়কের পাশে হাঁটা হয়। তাই ফেস্টুন দেখলেই জিকির করি। এখন জিকির অভ্যাসে পরিণত হয়েছে।

এ বিষয়ে ভূঞাপুর উপজেলা ইমাম পরিষদের সভাপতি ও কেন্দ্রীয় জামে মসজিদের ইমাম মুফতি শহিদুল ইসলাম ভূঞাপুরী জানান- গাছে গাছে আল্লাহর নাম সাঁটানোর বিষয়ে আমি জানি না। যারা এ কাজগুলো করেছে তা অবশ্যই প্রশংনীয় এবং যারা পাঠ করবেন তারাও সওয়াব পাবেন। এ পাঠগুলো যে কোন সময় পড়া যায়, এতে কোনো ক্ষতি নেই। তবে এমন কাজের বিষয়ে আমার সাথে কেউ আলোচনা করেনি।

টাঙ্গাইল জেলা শাখার জাতীয় মুফাসসির পরিষদের সাধারণ সম্পাদক মাওলানা মুহাম্মদ সাখাওয়াত হুসাইন বলেন, রাস্তার মোড়ে মোড়ে বিভিন্ন গাছে আল্লাহর জিকির ও গুণবাচক নামগুলো চোখে পড়েছে। তবে কে বা কারা এই বাণীগুলো টাঙিয়েছে তা জানি না। তিনি আরো বলেন, যারা লাগিয়েছে নিঃসন্দেহে এটি একটি মহৎ কাজ। তারা যদি সৎ উদ্দেশ্যে কাজগুলো করে থাকেন অবশ্যই সওয়াব পাবেন এবং যারা পড়বেন তারাও সওয়াব পাবেন।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

     এ বিভাগের আরো সংবাদ